দৌলতদিয়ায় পারাপারের অপেক্ষায় ৩ শতাধিক ট্রাক

দেশের দক্ষিণাঞ্চলের ২১ জেলার প্রবেশদ্বার হিসেবে খ্যাত ঢাকা-খুলনা মহাসড়কের দৌলতদিয়া প্রান্তে ও রাজবাড়ী সদর উপজেলার গোয়ালন্দ মোড় থেকে রাজবাড়ীমুখী কল্যাণপুর তিন কিলোমিটার এলাকা পর্যন্ত পণ্যবাহী ট্রাকের দীর্ঘ সারি দেখা গেছে।

দৌলতদিয়ায় প্রায় তিন শতাধিক ট্রাক পারাপারের অপেক্ষায় রয়েছে।

সরেজমিন সোমবার বেলা ১১টার দিকে রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ মোড় এলাকায় গিয়ে এই চিত্র দেখা যায়।

বেনাপোল থেকে আসা ভুসিবোঝাই ঢাকামুখী ট্রাকচালক জমির আলী বলেন, রাজবাড়ী সদর উপজেলার গোয়ালন্দ মোড় এলাকায় গত শনিবার রাতে এসে আটকে আছি। এখন পর্যন্ত ফেরির নাগাল পাইনি বলে ক্ষোভ প্রকাশ করেন তিনি।

দৌলতদিয়া-কুষ্টিয়া আঞ্চলিক মহাসড়কে চলাচলকারী লোকাল রাজন পরিবহণের বাসের সুপারভাইজার মোখলেসুর রহমান বলেন, এ নৌরুটে ফেরি স্বল্পতা রয়েছে। এর পাশাপাশি গোয়ালন্দ উপজেলা মাঠে স্থাপিত ওয়েটস্কেলের কারণে চলাচলকারী বাসের যাত্রীদের চরম ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে। দ্রুত ঘাটে ফেরি বাড়ানো ও মহাসড়কের ওয়েটস্কেলটি অন্যত্র সরিয়ে নেওয়ার দাবি জানান তিনি।

এ বিষয়ে বিআইডব্লিউটিসির দৌলতদিয়াঘাট শাখার ব্যবস্থাপক মো. শিহাবউদ্দিন গণমাধ্যমকে বলেন, দৌলতদিয়া প্রান্তের যানবাহনের সঙ্গে কাঁঠালবাড়ী-শিমুলিয়া প্রান্তে ট্রাকও কিছু যানবাহন এ রুট ব্যবহার করে।

এ কারণে দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে যাত্রী ট্রাকচালক ও সহকারীদের কিছুটা ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে। বর্তমানে এ নৌরুটে ছোট-বড় ১৯টি ফেরি চলাচল করছে বলে জানান ওই কর্মকর্তা।