গ্যাসের দাম দ্বিগুণ করার প্রস্তাব কার স্বার্থে: গণফোরাম

সরকারকে ‘লুটেরা’ আখ্যা দিয়ে নতুন করে গ্যাসের দাম বাড়ানো প্রস্তাব ও পরিকল্পনার কঠোর সমালোচনা করেছে গণফোরাম। কার স্বার্থে গ্যাসের দাম দ্বিগুণ করার এ পায়তারা, এ নিয়েও প্রশ্ন তুলেছে দলটি।

মঙ্গলবার (১ ফেব্রুয়ারি) গণফোরাম সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা মোস্তফা মোহসীন মন্টু ও সাধারণ সম্পাদক প্রবীণ আইনজীবী সুব্রত চৌধুরী এক যৌথ বিবৃতিতে এ মন্তব্য করেন।

বিবৃতিতে বলা হয়, দেশকে লুটপাট করে জনগণের অসহনীয় দুর্ভোগ-অশান্তি সৃষ্টি করাই লুটেরাদের প্রধান কাজ। এক চুলার জন্য প্রতিমাসে ৯২৫ টাকার বদলে ২০০০ টাকা, পরিবহনে সিএনজির ইউনিট প্রতি ৩৫ টাকার বদলে ৭৬ টাকা, শিল্পে প্রতি ইউনিটে ১০ টাকার বদলে ২৩ টাকা মূল্য নির্ধারণ করার যে অপচেষ্টা চলছে, তা দেশের সাধারণ নাগরিকদের জীবনমানের জন্য অমানবিক। জনগণের ওপর ভোজ্যতেলসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্যের লাগামহীন মূল্যবৃদ্ধির মাধ্যমে অত্যাচারের স্টিমরোলার চালানোর পরিকল্পনার দুঃসাহস দেখানো হচ্ছে। এগুলো কার স্বার্থে? কার অবৈধ থলে ভর্তি করতে এ পরিকল্পনা?

বিবৃতিতে নেতৃদ্বয় আরও বলেন, জনগণকে নিষ্পেষিত করার সরকারের এ অযৌক্তিক পরিকল্পনা দেশবাসী মানবে না। অবৈধভাবে নিশিভোটে ক্ষমতা দখল করা সরকারের যে একগুয়েমি চরিত্র, তার সবই প্রকাশ করেছে ক্ষমতাসীন কর্তৃত্ববাদী আওয়ামী লীগ সরকার। পাশাপাশি সব নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের লাগামহীন ঊর্ধ্বগতি জনজীবনে নাভিশ্বাস উঠিয়েছে।

গণফোরামের এ দুই শীর্ষ নেতা বিবৃতিতে বলেন, আমরা বিশ্বাস করি, একটি জনপ্রতিনিধিত্বমূলক সরকার ছাড়া জনজীবনের দুর্গতির সমাধান সম্ভব নয়। অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের লক্ষ্যে জাতীয় ঐক্যমতের সরকারের বিকল্প নেই।